পাপুল কুয়েতের নাগরিক হলে এমপি পদ বাতিল: প্রধানমন্ত্রী

লক্ষীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) শহীদ ইসলাম পাপুলের বিদেশি নাগরিকত্ব আছে কি না, সে ব্যাপারে খোঁজ নেওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

তিনি জানান, বিদেশি নাগরিকত্ব থাকার তথ্য পাওয়া গেলে তার আসন শূন্য ঘোষণা করা হবে। বুধবার (৮ জুলাই) জাতীয় সংসদের অধিবেশনে পয়েন্ট অব অর্ডারে দাঁড়িয়ে প্রধানমন্ত্রী এ কথা জানান। এর আগে বিএনপির এমপি হারুনুর রশিদ এ বিষয়টি পয়েন্ট অর্ডারে দাঁড়িয়ে উপস্থাপন করেন। এ সময় তিনি পাপুলের বিদেশি নাগরিকত্ব থাকার কথা  উল্লেখ করেন।

এর পর প্রধানমন্ত্রী দাঁড়িয়ে বলেন, তিনি (পাপুল) স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে এমপি হয়েছেন। আওয়ামী লীগের কাছে মনোয়ন চেয়েছিলেন, আমরা তাকে মনোনয়ন দেইনি। ওখানে আমরা মনোনয়ন দিয়েছিলাম জাতীয় পার্টির প্রার্থীকে। তিনি নির্বাচন করেননি। পাপুল এমপি হয়েছেন, তার স্ত্রীও সংরক্ষিত আসনের এমপি। আমরা খোঁজ-খবর নিচ্ছি, কথা বলছি, তিনি বিদেশি নাগরিক কিনা। সেটা হলে ওই সিট খালি করে দিতে হবে।

এর আগে বিএনপির এমপি হারুনুর রশিদ রিজেন্ট হাসপতালে দুর্নীতি-অনিয়ম এবং ত্রাণ প্রণোদনার তালিকায় অনিয়মের অভিযোগ তোলেন।

এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা সব তথ্য সংগ্রহ করে দায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়েছি। অপরাধীদের গ্রেফতার করেছি। তিনি (হারুন) যে বিষয়গুলো বললেন, সেটা সরকারি তথ্য। উনারা যদি এসব তথ্য আগে দিতেন, তাহলে আমরা খুশি হতাম।

সারা দেশে প্রণোদনার যে তালিকা হচ্ছে, তাতে কোনো অনিয়ম আছে কিনা, তা আমরা খুঁজে খুঁজে বের করছি। ওই তালিকায় যাদের নাম দেওয়া হচ্ছে, তাদের ফোন নম্বর, আইডি কার্ড, রজিস্ট্রেশন নম্বর মিলিয়ে দেখা হচ্ছে। এর পর যাচাই করে তাদের মোবাইল ফোনে, একাউন্টে প্রণোদনার টাকা দেওয়া হচ্ছে। এতে একটু দেরি হচ্ছে। উনি (হারুন) যে তিনটি বিষয়ের কথা বলছেন, আমরাই এ বিষয়গুলো ধরেছি, যোগ করেন প্রধানমন্ত্রী।