শামি আত্মহত্যার কথাও ভেবেছিলেন

 

দ্রোহ অনলাইন ডেস্ক

জাসপ্রিত বুমরাহও সঙ্গে ভারতের বোলিং আক্রমণে নতুন মাত্রা যোগ করেছেন মোহাম্মদ শামি। তিন ফরম্যাটে বিরাট কোহলির দলের অপরিহার্য হয়ে উঠেছেন। অথচ এই মোহাম্মদ শামি তিনবার আত্মহত্যার কথা চিন্তা করেছিলেন। চোটে পড়ে, পারিবারিক ঝামেলায় জড়িয়ে জীবন থেকে মুক্তি চেয়েছিলেন তিনি। রোহিত শর্মার সঙ্গে ভিডিও আলাপে মনের সেই গোপন ফাঁস করলেন কলকাতার অবাঙালি এই ক্রিকেটার।

শামি বলেন, ‘২০১৫ বিশ্বকাপে আমি চোট পেয়েছিলাম। ১৮ মাস লেগেছিল পুরোপুরি সুস্থ হয়ে ফিরতে। ওটা আমার জীবনের সব চেয়ে যন্ত্রণার সময়। প্রচুর চাপের মধ্যে দিয়ে যেতাম। এরপরে খেলায় ফিরতেই ব্যক্তিগত সমস্যায় জড়িয়ে পড়ি। ওই সময় পরিবারের অন্য সদস্যদের পাশে না পেলে হয়তো ফিরে আসতে পারতাম না। তিনবার আত্মহত্যা কথা ভেবেছি আমি।’

ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে মোহাম্মদ শামি ছিলেন চোট জর্জর। তবে ২০১৮ সালের মাঝপথে অস্ট্রেলিয়া সিরিজ থেকে নিয়মিত খেলছেন তিনি। বোলিং অ্যাকশনে সামান্য পরিবর্তন এনে, রানিং কমিয়ে চোট থেকেও মুক্তি পেয়েছেন আবার বলেও বেড়েছে গড়ি। কিন্তু এরই মাঝে জড়িয়ে পড়েন ব্যক্তিগত সমস্যায়। বছর দুই আগে স্ত্রী হাসিন জাহানের সঙ্গে বিরোধ শুরু হয় তার। থানা-পুলিশ থেকে আদালতে গিয়েছে সে মামলা।

সেই সময়ের অভিজ্ঞতা তুলে ধরে রোহিতকে ভারতীয় পেসার শামি বলেন, ‘ওই সময় ২৪ ঘণ্টা সঙ্গে কেউ থাকত। এক মুহূর্ত আমাকে একা ছাড়া হতো না। আমি মানসিকভাবে ভালো ছিলাম না। কিন্তু পরিবার আমার পাশে থেকেছে। পরিবার পাশে থাকলে যেকোন পরিস্থিতি সামলানো সম্ভব। ওই সময় আমার পরিবার সঙ্গে না থাকলে খারাপ কিছু করে ফেলতে পারতাম। পরিবারকে তাই ধন্যবাদ দিতে চাই।